পুতিনবিরোধী প্ল্যাকার্ডে ঢেকে যায় জার্মানির বিভিন্ন শহর

আন্তর্জাতিক স্লাইড

মার্চ ১৫, ২০২২ ৮:৪৯ পূর্বাহ্ণ

ইউক্রেনে রুশ সামরিক অভিযানের প্রতিবাদে জার্মানির বিভিন্ন শহরে বিক্ষোভ হয়েছে। রাজধানী বার্লিনসহ দেশটির বড় বড় শহরে সমাবেশে ঢল নামে হাজার হাজার শান্তিকামী মানুষের।

যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযান বন্ধ এবং অবিলম্বে শান্তি প্রতিষ্ঠার দাবিতে স্থানীয় সময় রোববার (১৩ মার্চ) জার্মানির রাজধানী বার্লিনসহ বাণিজ্য নগরী ফ্রাঙ্কফুর্ট, স্টুর্টগাট, লাইপজিগ ও হামবুর্গে জড়ো হন কয়েক লাখ সাধারণ মানুষ। সমাবেশ থেকে যুদ্ধ বন্ধের আহ্বান জানান বিক্ষোভকারীরা।

এ সময় শান্তির পক্ষে স্লোগান আর যুদ্ধ ও পুতিনবিরোধী নানা প্ল্যাকার্ডে ঢেকে যায় পুরো সমাবেশস্থল।

হেলেনা ক্রাস নামে একজন বলেন, মানবিক বিপর্যয়ে পড়া সাধারণ ইউক্রেনীয়দের আমরা ভুলিনি। আমরা যুদ্ধ চাই না বলেই আবারও রাস্তায় নেমেছি।

প্রতিবাদকারীরা বলছেন, ইইউ ও পশ্চিমা বিশ্ব রাশিয়ার বিরুদ্ধে যে ধরণের অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে তা সঠিক। রুশ বাহিনীকে ঠেকাতে ইউক্রেনের সেনাবাহিনীকে আরও অস্ত্র সরবরাহ করা উচিত বলে মনে করি।

ইউক্রেনে অস্ত্র সরবরাহের সিদ্ধান্তের বিষয়ে বিক্ষোভকারীদের মধ্যেও মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। অনেকে মনে করছেন, অস্ত্র সরবরাহ করা হলে তা ইউক্রেনের চলমান সংকট নিরসন ও শান্তি প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে বাঁধা হয়ে দাঁড়াতে পারে।

বারবারা নামে একজন বলেন, দেখুন ইউক্রেনকে যুদ্ধ সরঞ্জাম দিয়ে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেওয়ার জার্মানির সিদ্ধান্তকে আমি সঠিক মনে করছি না। এতে সংঘাত আরও বাড়বে, শান্তি প্রতিষ্ঠা হবে বলেও মনে হয় না। যে ১০০ বিলিয়ন ইউরো এই খাতে খরচ হবে তা দিয়ে দেশটির জন্য টেকসই উন্নয়ন করা যেত।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর ইউরোপে সবচেয়ে বড় সংঘাত চলছে ইউক্রেনে। রুশ সামরিক অভিযানের প্রতিবাদে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে চলছে বিক্ষোভ। যাতে স্বতস্ফূর্তভাবে অংশ নিচ্ছেন সাধারণ মানুষ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *